রাজধানীতে ভারি বৃষ্টিপাতে ভোগান্তি : বিভিন্ন মহাসড়কে দীর্ঘ যানজট (ভিডিও)

সকাল থেকেই রাজধানী ঢাকাসহ দেশের বিভিন্ন স্থানে ভারি বৃষ্টিপাত হচ্ছে। এতে রাজধানীর বিভিন্ন সড়কে পানি জমে যায়।এতে ঈদের ছুটিতে বাড়ি যাওয়ার পথে থাকা যাত্রীরা পড়েছেন ভোগান্তিতে।

bandicam 2017-06-19 12-18-45-281

ছবি-সোহেল রানা

ভূক্তভোগী কয়েকজন জানিয়েছেন, সকালে ঠিক অফিসে যাওয়ার পূর্বমুহুর্তে তুমুল বৃষ্টি হওয়ায় তারা তীব্র ভোগান্তিতে পড়েন। অনেকে বিভিন্ন ট্রাফিক সিগন্যাল ও রাস্তার পাশের বিভিন্ন স্থানে আশ্রয় নেন নেন। এতে অনেকেই সঠিক সময়ে অফিসে পৌছাতে পারেননি।

তবে সবচেয়ে বেশি ভোগান্তিতে পড়েন ফুটপাথের ব্যবসায়ীরা। বৃষ্টির কারণে তাদের ব্যবসা গুটিয়ে নিরাপদ আশ্রয়ে চলে যেতে হয়। ফলে তারা তাদের পন্য বিক্রি করতে পারেননি।

 

ভিডিও-সোহেল রানা, স্থান- হাতিরঝিল ও তেজগাঁও শিল্পাঞ্চল

আবহাওয়া অফিস জানিয়েছে, বর্ষা মওসুম হওয়ায় এখন এ ধরণের বৃষ্টি স্বাভাবিকভাবেই অব্যাহত থাকবে। তবে সকাল থেকে কত মিলিমিটার বৃষ্টি হয়েছে তা আরো পরে জানা যাবে বলে জানানো হয়েছে।

গাজীপুর প্রতিনিধি জানিয়েছেন, ঢাকা-ময়মনসিংহ মহাসড়কের গাজীপুর মহানগরের চান্দনা চৌরাস্তা থেকে টঙ্গী হয়ে এয়ারপোর্ট পর্যন্ত প্রায় ২০ কিলোমিটার সড়কে যানজটের সৃষ্টি হয়েছে। গত কয়েকদিনের থেমে থেমে বৃষ্টির কারনে এই মহাসড়কের বিভিন্ন স্থানে খানাখন্দ এবং সড়কে পানি থাকায় শনিবার থেকেই এ যানজট শুরু হয়।

গতকাল দুপুরের পর কিছুটা কমলেও আজ সকাল থেকে আবোরো বৃষ্টি শুরু হলে এর তীব্রতা বেড়ে যায়। ঢাকা-টাঙ্গাইল মহাসড়কের চার লেন নির্মান কাজ এবং মহাসড়কের কোনাবাড়িতে ফ্লাই ওভারব্রিজ নির্মান কাজ চলতে থাকায় ওই মহাসড়কের কোনাবাড়ি থেকে চন্দ্রা পর্যন্ত থেমে থেমে যানজট রয়েছে।

ময়মনসিংহ মহাসড়কের নগরের বোর্ড বাজার, সাইনবোর্ড, মালেকের বাড়ি, বাসন সড়ক ও ভোগড়া বাইপাস এলাকায় সড়কের পাশে বৃষ্টির পানি জমে থাকায় এবং ভাঙাচোরা থাকার কারণে যানবাহন চলছে  খুবই ধীর গতিতে। মাত্র আধা ঘন্টার পথ পাড়ি দিতে চার-পাঁচ ঘন্টা সময় লেগে যাচ্ছে। এতে করে অফিস আদালত গামী চাকুরীজীবীসহ নানা শ্রেনী পেশার কর্মজীবী লোকজন চরম ভোগান্তিতে পড়েছেন।

জেলার পুলিশ সুপার মোহাম্মদ হারুন অর রশীদ জানান, এই যানজট ঈদের যানবাহনের জন্যে নয়, বৃষ্টিতে মহাসড়কের বিভিন্নস্থানে গর্ত সৃস্টি হওয়ায় এবং সড়কের পাশে পানি জমে থাকায় যানজট পুরোপুরি স্বাভাবিক করা যাচ্ছে না। তবে সড়ক পরিস্থিতি স্বাভাবিক রাখতে নানা উদ্যোগ নেয়া হয়েছে এবং অপ্রাণ চেষ্টা করা হচ্ছে বলেও জানান তিনি।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Radio Today 89.6fm